Menu

কাহালুতে চোর সন্দেহে যুবককে নির্যাতনের ঘটনায় গ্রেফতার-১

কাহালু (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ বগুড়ার কাহালু উপজেলার অঘোর মালঞ্চা গ্রামে চোর সন্দেহে এক যুবককে নির্যাতনের ঘটনায় গতকাল শুক্রবার সকালে আছিয়া বেগম (২৪) নামের এক মহিলাকে গ্রেফতার করে পুলিশ। আছিয়া অঘোর মালঞ্চা গ্রামের মোঃ জনির স্ত্রী।

জানা গেছে গত বৃহস্পতিবার ভোরে অঘোর মালঞ্চা গ্রামের মোঃ মজনু মিয়ার পুত্র আতাউর রহমান শিরু (২৪) কে কয়েকজন নারী-পুরুষ মিলে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে যায় ওই গ্রামের প্রবাসী মিল্টনের বাড়িতে।

সেখানে তাকে গ্যাস সিলিন্ডার চুরির অপবাদ দিয়ে মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্যাতন করা হয়। শিরুর বাম পায়ে হাতুড়ি দিয়ে পেরেক মেরে, হাতের আগুলে সুচ ফুটানো হয়। এরপর হাতুড়ি ও বাটাম দিয়ে শিরুকে নির্যাতন করে ওই বাড়ির লোকজন। পরে পুলিশ শিরুকে উদ্ধার করে কাহালু হাসপাতালে ভর্তি করে দেন।

এদিকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শিরুকে নির্যাতনের দৃশ্য ভাইরাল হলে, এলাকায় সমালোচনার ঝড় উঠে। অবশেষে গত বৃহস্পতিবার রাতে পাঁচজনকে আসামী করে থানায় একটি মামলা করা হলে, পরদিন সকালে পুলিশ একজন নির্যাতনকারীকে গ্রেফতার করেন।

কাহালু থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আমবার হোসেন জানান, আইন নিজের হাতে তুলে নেওয়ার অধিকার কারো নেই। শিরুকে যারা নির্যাতন করেছে তাদের সবাইকে আইনের আওতায় আনা হবে।

 

No comments

Leave a Reply

5 + 20 =

সর্বশেষ সংবাদ