Menu

গাবতলীতে মিলাদের পোলাও খেয়ে নারী-শিশুসহ অর্ধ শতাধিক অসুস্থ্য

সোনাতলা সংবাদ ডটকম (বগুড়া প্রতিনিধি): বগুড়ার গাবতলীতে মিলাদ মাহফিলের পোলাও ভাত খেয়ে একই গ্রামের নারী-শিশুসহ কমপক্ষে অর্ধ শতাধিক গুরুত্বর অসুস্থ্য হয়ে পড়েছে। অসুস্থ্যরা গাবতলী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। আশংকাজনক অবস্থায় শিশুসহ ৪জনকে বগুড়া মোহাম্মাদ আলী হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়েছে। উপজেলার দুর্গাহাটা ইউনিয়নের নিজ দূর্গাহাটা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
জানা গেছে, গাবতলী উপজেলার নিজ দূর্গাহাটা গ্রামের আলেম প্রধানের স্ত্রী বুলি বেগম (৬০) গত কয়েক বছর আগে মারা যান। এরপর বয়সের ভারে আলেম প্রধান (৭৫) ও তার ছেলে বুলু মিয়া (৫০) অসুস্থ্য হয়ে পড়েন। এ উপলক্ষে আলেম প্রধান, বুলু মিয়া ও মরহুমা বুলির জন্য দোয়া চেয়ে পরিবারের লোকজন গত শুক্রবার জুম্মার নামাজ শেষে নিজ দূর্গাহাটা জামে মসজিদে দোয়া ও মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করেন। মসজিদে মুসল্লীদের মাঝে মিলাদের পোলাও বিতরণ শেষ হলে অতিরিক্ত কিছু পোলাও গ্রামের মানুষের মাঝে বিতরণ করেন। মিলাদের পোলাও খেয়ে ওইরাত থেকে শত শত মানুষের পেট ব্যথা শুরু হয়। এর সঙ্গে যোগ হয় ডায়রিয়া, বমি ও জ্বর। এই অসুস্থ্যতার মাত্রা বেড়ে গেলে গত শনিবার সন্ধ্যারাত থেকে অসুস্থ্য রোগীরা গাবতলী হাসপাতালে ভর্তি হতে শুরু করে। গতকাল রবিবার দুপুর পর্যন্ত গাবতলী হাসপাতালে ভর্তি হয় মোট ৩৪জন। গুরুত্বর অসুস্থ্য হওয়ায় শিশুসহ ৪জনকে বগুড়া মোহাম্মাদ আলী হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। এরা হলো, ওই গ্রামের এমদাদুলের মেয়ে রিমি (৬), হারুনের স্ত্রী লিপি বেগম (২৫), রাজিব এর স্ত্রী রতœা বেগম (২৫) এবং ফিকির প্রাং এর ছেলে মোমিন (৩৫)। এদের মধ্যে লিপি বেগমের অবস্থা আশংকাজনক বলে জানা গেছে। গাবতলী হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে ২৮জন। এরমধ্যে ৯জন শিশু, ১০জন নারী এবং ১৫জন পুরুষ। বিষয়টি গুরুত্ব দিয়ে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পঃপঃ কর্মকর্তা ডাঃ শারমিনা শিল্পী একটি মেডিকেল টিম নিয়ে গতকাল সকালে ডায়রিয়া, বমি ও জ্বরে আক্রান্ত ওই গ্রামের প্রায় ৪৪জনকে প্রাথমিক চিকিৎসা প্রদান করেছেন।

No comments

Leave a Reply

four × four =

সর্বশেষ সংবাদ