Menu

গাবতলীর জামিরবাড়িয়া হাটে সরকারী জায়গা দখল করে দোকান ঘর নিমার্ণ

সোনাতলা সংবাদ ডটকম (মুহাম্মাদ আবু মুসা): বগুড়া গাবতলীর সোনারায় ইউনিয়নের অর্ন্তগত জামিরবাড়িয়া হাটে সরকারী জায়গা দখল করে অবৈধভাবে দোকান ঘর নির্মাণ করে ব্যবসা বাণিজ্য করার অভিযোগ উঠেছে প্রভাবশালীদের বিরুদ্ধে। সরকারের বিনা অনুমতিতে এবং সরকারী রাজস্ব প্রদান ব্যতি রেখেই অবৈধভাবে দোকান ঘর নির্মাণ করে ব্যবসা বাণিজ্য করছে অবৈধ দখলদাররা।

বিষয়টি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের নজরে আসলে দখলদারদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে প্রাথমিকভাবে চিঠি দেয়া হয়েছে। জামিরবাড়িয়া মৌজার জেএল নং ৩৩ এবং ১নং খতিয়ানের ৭৭৭ নং দাগে ০.০০৪৪ একর জমির উপর অবৈধভাবে সরকারী জায়গা দখল করে দোকান ঘর নির্মাণ করে ব্যবসা বাণিজ্য করার কারনে পাশর্^বর্তী খুপি গ্রামের সমসেল মন্ডলের ছেলে অবৈধ দখলদার রন্জু মন্ডলকে দ্রæত অপসারণের জন্য উপজেলা ভুমি অফিস থেকে চিঠি দেয়া হয়।

উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভুমি) সালমা আক্তার স্বাক্ষরিত জামিরবাড়িয়া হাটে এই ধরনের ৪৬জন অবৈধ দখলদারকে দ্রæত অপসারণের জন্য চিঠি দিয়েছেন। অন্যথায় তাদের বিরুদ্ধে আইন মোতাবেক ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে বলে হুশিয়ারী দেয়া হয়েছে।

ওই হাটে সরকারী জায়গা দখল করে অবৈধভাবে দোকান ঘর নির্মাণ করে ব্যবসা বাণিজ্য যারা করছে তাদের মধ্যে খুপি গ্রামের আনোয়ার হোসেন, আতোয়ার রহমান, রফিকুল ইসলাম, সাইফুল ইসলাম, সোহেল, জামিরবাড়িয়া গ্রামের বিদ্যুৎ, নুরু, মহসিন, হজরত, তোজাম্মেল, মিলনসহ আরো অনেকে। জামিরবাড়িয়া হাট কর্তৃপক্ষ জানান, অবৈধভাবে দোকান ঘর নির্মাণ করে ব্যবসা করলেও তারা সরকারী টোল পর্যন্ত দিচ্ছে না।

এ ব্যাপারে উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভুমি) সালমা আক্তারের সাথে কথা বললে তিনি জামিরবাড়িয়া হাটে সরকারী জায়গা দখল করে অবৈধভাবে দোকান ঘর নির্মাণ করে ব্যবসা বাণিজ্য করার দ্রæত অপসারণের জন্য চিঠি দেয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেছেন, অন্যথায় তাদের বিরুদ্ধে আইন মোতাবেক ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। তবে এদের মধ্যে অনেকে তাদের নিজের জমির উপর দোকান ঘর নির্মাণ করার দাবী করেছেন। ফলে কেউ কেউ আদালতে যাবেন বলে শোনা যাচ্ছে।

No comments

Leave a Reply

3 × two =

সর্বশেষ সংবাদ