Menu

শিবগঞ্জের সদর ইউনিয়নে ভিজিএফএর চাল বিতরনে অনিয়মের অভিযোগ

সোনাতলা সংবাদ ডটকম (শিবগঞ্জ প্রতিনিধি): বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলার ৮নং শিবগঞ্জ সদর ইউনিয়ন পরিষদে গত বৃহস্পতিবার পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষে গরীব ও দুস্থদের মাঝে ভিজিএফ এর চাল বিতরন করেন অত্র ইউনিয়নের চেয়ারম্যান বিএনপি নেতা তোফায়েল আহমেদ সাবু। এবার শিবগঞ্জ সদর ইউনিয়নের বরাদ্ধকৃত চালের পরিমান প্রায় ২৯.৭৭৫ মেট্রিকটন। এ ইউনিয়নে ভিজিএফ এর মোট উপকারভোগী ১৯০০ জন। এবং জনপ্রতি ১৫কেজি করে চাল পাওয়ার কথা থাকলেও ১২০০ জন গড়ে পেয়েছে ১২-১৩ কেজি করে এবং বাকী ৭০০ জন পেয়েছে ৯-১০ কেজি করে। গড় হিসাবে দেখা যায়, প্রায় ৯ মেট্রিকটন চাল কম বিতরণ করা হয়েছে। যার বাজার মুল্য আনুমানিক এক লক্ষ আশি হাজার টাকা। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ধাওয়াগীর গ্রামের একজন উপকারভোগী বলেন, এ চাউল কালো বাজারে বিক্রির জন্য একাধীক দালাল চক্র কাজ করে। তারা কম দামে চাউল কিনে বেশি দামে বিক্রি করে। এর ফলে দাদাল চক্রের মাধ্যমেও চেয়ারম্যান লাভবান হয়। আমাদের চেয়ারম্যান ম্যানেজ করেই এসব করেন। ভিজিডি কার্ডধারী ধলী বেগম বলেন, আমি ৯কেজি চাল পেয়েছি। রুপি বলেন, আমি ৮ কেজি চাল পেয়েছি। মলি ও চামেলী একই কথা বলেন। আব্দুর রাজ্জাক বলেন, আমি ১৩ কেজি চাল পেয়েছি। উক্ত চাউল স্থানীয় দালালের কাছে কৌশলে পাচার হয়েছে। উক্ত অনিয়ম নিয়ে কথা বলতে চাইলে অত্র ইউপি চেয়ারম্যান বিএনপি নেতা তোফায়েল আহমেদ সাবু কোন মন্তব্য না করে বিষয়টি এড়িয়ে যান। অত্র ইউনিয়নের ভিজিএফ এর ট্যাগ অফিসার উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা ইমরানুল হক এ প্রতিবেদককে বলেন, আমি এ বিষয়ে কিছুই জানিনা অত্র ইউনিয়নের চেয়ারম্যান বিষয়টি ভালো বলতে পারবে। তবে সচেতন একটি মহল মনে করছে, যারা গরীবের চাউল মেরে খায় তারা আবার কিসের জনপ্রতিনিধি। যে দেশে গ্রাম গঞ্জের গরীব দুস্থ্য ও অবহেলিত জনগোষ্ঠীর ভাগ্যের উন্নয়ের জন্য বঙ্গবন্ধু কন্যা বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দিনরাত নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন আর সেখানে অসৎও দুর্নীতিবাজ স্থানীয় কিছু জনপ্রতিনিধির কারনে স্থানীয় সরকার ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন হতে পারেনা।

No comments

Leave a Reply

10 − 10 =

সর্বশেষ সংবাদ