Menu

সরকার মানুষকে ইসলামের প্রকৃত শিক্ষায় আলোকিত করতে কাজ করছে -রবিন খান

সোনাতলা সংবাদ ডটকম (সাব্বির হাসান, গাবতলী বগুড়া): বগুড়ার গাবতলী উপজেলা চেয়ারম্যান রফি নেওয়াজ খান রবিন বলেছেন, বর্তমান সরকার ইসলাম ধর্মের প্রচার ও প্রসার ঘটানোর জন্য প্রতিটি উপজেলায় একটি করে মডেল মসজিদ নির্মাণ করছে। যেখান থেকে মানুষ ইসলামের প্রকৃত শিক্ষা সম্পর্কে জানতে পারবে। তিনি বলেন, বর্তমান সরকার মুসলিম সমাজকে ইসলামের প্রকৃত শিক্ষায় আলোকিত করতে কাজ করছে।

তিনি গতকাল বুধবার পৌর সদরের পুরান বাজারে গাবতলী উপজেলা মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণ কাজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন শেষে আয়োজিত সুধী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।

বগুড়া ইসলামিক ফাউন্ডেশনের উপ-পরিচালক আব্দুর রাজ্জাকের সভাপতিত্বে সমাবেশে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন বগুড়া গণপূর্ত বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী বাকী বিল্লাহ, গাবতলীর ইউএনও রওনক জাহান এবং মডেল থানার তদন্ত ওসি জাকির হোসেন মোল্লা।

আরও বক্তব্য রাখেন উপজেলা আ’লীগের সভাপতি আব্দুস সালাম ভুলন, যুগ্ম সম্পাদক আব্দুল গফুর, গাবতলী প্রেসক্লাবের সভাপতি এনামুল হক প্রমুখ।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আমিনুল ইসলাম মুক্তা, রেকসেনা জালাল, উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক হারুন-অর-রশিদ, মুক্তিযোদ্ধা টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি খাজা নাজিমুদ্দিন, উপজেলা আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মোমিনুল হক শিলু, রেজাউল করিম বাবলু এমপির গাবতলী প্রতিনিধি জাফরু পাইকার,

ইউপি চেয়ারম্যান লতিফুল বারী মিন্টু, আঃ মতিন মিঠু, আমিনুল ইসলাম, গোফ্ফার আলী, সাইফুল ইসলাম, তপন, সেকেন্দার আলী, মহিলানেত্রী জাহানারা, নাজমা আকতার, পাপিয়া, পৌর আ’লীগের যুগ্ম আহবায়ক দেলোয়ার হোসেন দিলু,

আশিকুর রহমান আশিক, উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক শাহজাহান আলী, উপজেলা শ্রমিকলীগের যুগ্ম আহবায়ক মাহমুদুন নবী অটল, পৌর যুবলীগের সভাপতি হযরত আরী হিরন, সাংগঠনিক সম্পাদক পিপুল, উপজেলা কৃষকলীগের যুগ্ম আহবায়ক ফোরকান আলী প্রমুখ।

বগুড়া গণপূর্ত বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী বাকী বিল্লাহ জানান, ১২ কোটি ৫৪লাখ টাকা ব্যয়ে ৩য়তলা বিশিষ্ট এই মসজিদটি নির্মিত হবে। মসজিদটি তদারকি করবেন ১৬জন কর্মকর্তা-কর্মচারী। তারা সবাই রাজস্ব খাত থেকে বেতন পাবেন।

মসজিদের নীচ তলায় ইমাম প্রশিক্ষণ কেন্দ্র, অটিজম কর্নার, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের বই বিক্রয় কেন্দ্র, প্রতিবন্ধী ব্যক্তিগণের নামাজের স্থান, মূর্দা গোসল খানা ও পাকিং ইত্যাদির ব্যবস্থা থাকবে, ২য় তলায় মসজিদ, অজুখানা ও ইসলামিক ফাউন্ডেশনের উপজেলা কার্যালয় হবে, ৩য় তলায় মসজিদ, অজুখানা যাহার অর্ধেক মহিলাদের জন্য সংরক্ষিত,

ইমাম-মোয়াজ্জিনগণের কক্ষ, ইসলামিক গবেষনা কেন্দ্র, ইসলামিক গ্রন্থাগার ও অতিথি কক্ষ। ভবনের বৈশিষ্ট্য হলো ভবনের মসজিদ অংশের মেঝে মার্বেল পাথরে নির্মাণ হবে, প্রায় ১’শ ফুট উচু একটি মিনার হবে, বাহির দেয়ালের সৌন্দর্য্য বৃদ্ধির জন্য ক্রোমিয়াম স্টিল ফেব্রিকেশন ওয়ার্ক দ্বারা নির্মিত হবে, মসজিদসহ অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ কক্ষ শীততাপ নিয়ন্ত্রিত হবে,

ভবনের ছাদে ৪টি গুম্বুজ থাকবে, সার্বক্ষনিক বিদ্যুৎ সরবরাহের জন্য ৩০ কেভিএ জেনারেটর এবং ১’শ ৫০ কেভিএ সাব-স্টেশন থাকবে, সিসি টিভি ও সাউন্ড সিস্টেম থাকবে, ৩০হাজার গ্যালন ধারণ ক্ষমতা সম্পন্ন ভূগর্ভস্থ জলাধারসহ ডিপ টিউবওয়েল থাকবে।

ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে ও গণপূর্ত অধিদপ্তর এবং ইসলামিক ফাউন্ডেশনের বাস্তবায়নে আগামী ১৮মাসের মধ্যে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান মেসার্স কবির ট্রেডার্স, বগুড়া নির্মাণ কাজ শেষ করবে।

No comments

Leave a Reply

fifteen + 17 =

সর্বশেষ সংবাদ