Menu

সোনাতলায় ছেলের মারধরে বৃদ্ধ পিতা হাসপাতালে

সোনাতলা প্রতিনিধিঃ বগুড়া সোনাতলায় ছেলের নির্যাতনের শিকার হয়ে বৃদ্ধ পিতা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছে ৷আহত পিতা উপজেলার সদর ইউনিয়নের বিশ্বনাথপুর গ্রামের মৃত ইব্রাহিম উদ্দিনের ছেলে মোঃ ফারাজুল ইসলাম ৷

স্থানীয় সুত্রে জানাগেছে, ছেলে মোঃ আবু তাহের হলেন ফারাজুল ইসলামের তৃতীয় সন্তান ৷ইতিপুর্বে পারিবারিক ভাবে ফারাজুলের চার ছেলে মিলে সমানভাগে পিতাকে প্রতিমাসে ঔষধ কেনা বাবদ মাসে ১২০০ টাকা দেওয়ার কথা থাকলেও আবু তাহের তার ভাগের টাকাটা ঠিকঠাক মত পরিশোধ করেননি ৷ঔষধের টাকা চাওয়াকে কেন্দ্র করে পিতাকে ইতিপুর্বেও মারধর করে তাহের ৷

এ বিষয় নিয়ে কয়েকদিন ধরে বিবাদ চলে আসছে পিতা ও পুত্র তাহেরের সাথে ৷এর পরিপ্রেক্ষিতে ২৭শে এপ্রিল মঙ্গলবার সকালে ওই গ্রামের ইউপি সদস্য সহ কিছু লোক বসে বিষয়টির মিমাংসার জন্য। সে সময়ে তাহের উত্তেজিত হয়ে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে ফারাজুল ইসলামকে বেদম মারপিট করে ছেলে ৷

ছেলের অমানুষিক নির্যাতনের শিকার হয়ে পিতা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎধীন রয়েছে ৷গ্রামের নাম প্রকাশ না করার শর্তে কিছুলোক জানান, তাহের এর আগেও বেশ কয়েকবার মারধর করেছে পিতা ফারাজুল ইসলামকে ৷এমনকি তাহেরের বৌ লাঠি দিয়ে শ্বশুরের মাথায় আঘাতও করেছে ৷

সদর ইউপি সদস্য নজরুল ইসলাম বলেন,এর আগেও তাদের মধ্যে ঝগড়া বিবাদের মিমাংসা করে দিয়েছি ৷আহত ফারাজুল ইসলাম আবারও জানালে আমি সহ কয়েকজন মিলে মিমাংসার প্রক্রিয়া চালানোর সময় হঠাৎ তাহের এসে তার পিতাকে বেদম মারপিট করে ৷

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক বলেন রুগি মানসিক ভাবে ভেঙ্গে পড়েছে পাশাপাশি চিকিৎসা চলছে ৷

সোনাতলা থানার ওসি রেজাউল করিম রেজা বলেন,ভুক্তভোগী থানায় অভিযোগ করেছে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে ৷

No comments

Leave a Reply

eleven + 13 =

সর্বশেষ সংবাদ