Menu

সোনাতলায় নগদের এজেন্ট ব্যবসায়ীদের ৭লাখ টাকার কোনও হদিস নেই

সোনাতলা সংংবাদ ডটকম (স্টাফ রিপোটার): বগুড়ার সোনাতলা উপজেলায় সরকারী ডিজিটাল মোবাইল ব্যাংকিং নগদ এ লেনদেন করা প্রায় ৩০জন এজেন্ট এর প্রায় ৭ লাখ টাকার কোনও হদিস নেই। এক সপ্তাহেও নগদের কোনও কর্মকর্তা এজেন্টদের সাথে যোগাযোগ করেনি। এতে উপজেলার কয়েকটি বন্দর এলাকায় নগদে লেনদের বন্ধ থাকায় দূভোগে পড়েছে কয়েকশত ভাতাভোগী বয়স্ক, বিধবা ও প্রতিবন্ধী মানুষ।

জানাগেছে, গত (২৫ মে) মঙ্গলবার দুপুর আড়াইটার দিকে উপজেলার কর্পূর থেকে বালুয়া সড়কের পাঁচকুড়া ব্রীজের নিকট নগদ কমীকে ছুরিকাঘাতে আহত করে ৬লাখ ৩০ হাজার টাকা ছিনতাই করা হয় বলে অভিযোগ করা হয়। এঘটনার এক সপ্তাহ পেরিয়ে গেলেও থানায় কোনও মামলা হয়নি।

নগদের এজেন্ট ব্যাবসায়ীরা জানিয়েছে, নগদ কমী দুপুর ১২টার মধ্যে ব্যালেন্স ট্রানেস্ফার করে নিয়ে পরে টাকা দিয়ে যায়। ওই দিনও প্রায় ৭ লাখ টাকা ব্যালেন্স ট্রানেস্ফার করে নেয়। এরপর ছিনতাইয়ের অযুহাতে আর টাকাগুলো দিচ্ছেনা।

সৈয়দ আহম্মদ কলেজ হাটের ব্যবসায়ী খোকন ৩৪ হাজার টাকা এবং একই এলাকার ব্যবসায়ী শান্ত কুমার ৪৩ হাজার টাকা বিটুবি ট্রান্সফার করেছে বলে জানান। তারা জানান, গত এক সপ্তাহের মধ্যেও কোনও নগদ কর্মকর্তা এজেন্টদের সাথে যোগাযোগ করেনি।

সোনাতলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রেজাউল করিম রেজা বলেন, আমরা বিষয়টি তদন্ত করে দেখছি।

No comments

Leave a Reply

twelve − seven =

সর্বশেষ সংবাদ