Menu

সোনাতলায় প্রশাসনের চোখ ফাঁকি দিয়ে অবাধে চলছে ভেকু দিয়ে মাটি কর্তন

সোনাতলা (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ বগুড়ার সোনাতলায় উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসনের চোঁখ ফাকি দিয়ে ফসলি জমি হতে অবাধে চলছে ভেকু দিয়ে মাটি কর্তন ও ক্রয়-বিক্রয়ের রমরমাট ব্যাবসা। এতেকরে জনমনে নেমে এসেছে চরম দুর্ভোগ।
জানাযায়, উপজেলার বালুয়া ইউনিয়নের (বালুয়াহাট টু দাউদপুর) যাবার পথে উত্তর আটকড়িয়া গ্রামে প্রধান রাস্তা সংলগ্ন স্থানে ফসলি জমি হতে অবাধে চলছে ভেকু দিয়ে মাটি কর্তন। এ থেকে একদিকে যেমন শ্রেনী পরিবর্তনের মাধ্যমে ফসলি জমির পরিমান কমে যাচ্ছে। অন্যদিকে মাটি পরিবহনের কাজে ব্যবহৃত ট্রাক্টর চলাচলের ফলে এলাকার ছোট ছোট রাস্তা গুলো নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। সেইসাথে এলাকার লোকজন বিভিন্ন দুর্ঘটনার কবলে পরতে পারে বলে অনেকেই মনে করছেন।
এবিষয়ে ঐ এলাকার কিছু অটো চালক বলেন, এই ছোট রাস্তা দিয়ে এসব ট্রাক্টর ও ট্রাক চলাচলের ফলে তাদেরও যাতায়াতের সমস্যা হচ্ছে। এতেকরে ঘটতে পারে বিভিন্ন দুর্ঘটনা। তাই বিভিন্ন ধরনের দুর্ঘটনার হাত থেকে রক্ষা পেতে উক্ত কাজ বন্ধ করতে উপজেলা প্রশাসন ও স্থানীয় পুলিশ প্রশাসনের সহযোগিতা কামনা করেছেন তারা।
উল্লেখ্য, উপজেলার ভিভিন্ন এলাকায় ড্রেজার মেশিন দিয়ে ভুমি হতে বালু উত্তোলন ও ভেকু দিয়ে মাটি কর্তন বন্ধ করতে উপজেলা প্রশাসন ও স্থানীয় পুলিশ প্রশাসন সবসময় তাদের অভিযান অব্যাহত রেখেছে। ইতিপুর্বে এলাকার সর্বস্তরের জনসাধারনকে ভুমিধ্বসের কবল থেকে রক্ষা করতে উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসনের অভিযানে বহু ড্রেজার মেশিন ও বালু উত্তোলনের বিভিন্ন সরঞ্জাম ভঙ্গুল সহ ভেকুদারা মাটি কর্তন করায় তা বন্ধ করা হয়েছ। সেইসাথে এলাকার মানুষের নিরাপত্তার সার্থে এসকল কাজে জড়িত সকলকে উক্ত কাজ বন্ধ রাখতে কঠোর নিষেধাঙ্গা দেয়া হয়েছে।

No comments

Leave a Reply

3 × 1 =

সর্বশেষ সংবাদ