Menu

সোনাতলা পৌরসভার ১৫টি সড়ক লন্ড ভন্ডঃ ২০ কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি

সোনাতলা সংবাদ ডটকম (বদিউদ-জ্জামান মুকুল, সোনাতলা): গত ৩০ বছরের মধ্যে এবারের ভয়াবহ বন্যায় বগুড়ার সোনাতলা পৌরসভার ১৫টি সড়ক লন্ডভন্ড হয়ে গেছে। এতে ক্ষতিগ্রস্থ সড়ক যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। ফলে পথচারীদের দূর্ভোগ চরমে উঠেছে। সড়কগুলো নষ্ট হওয়ায় প্রায় ২০ কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে পৌরসভা থেকে জানাগেছে।
সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, চলতি বছরের বন্যায় বগুড়ার সোনাতলা পৌরসভার ১৫টি সড়ক খানা খন্দকে পরিনত হয়েছে। সড়কগুলোতে কার্পেটিং পিচ উঠে গিয়ে ছোট বড় অসংখ্য গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। এমনকি স্বাভাবিক যান চলাচল বন্ধ হয়ে গেছে।
সড়কগুলো হচ্ছে, সোনাতলা ঘোড়াপীড়-জুমারবাড়ি সড়ক, সোনাতলা উপজেলা পরিষদের দক্ষিণ পাশের গেট থেকে কামারপাড়া সড়ক, কামারপাড়া থেকে সমজাতাইড় সড়ক, কামারপাড়া থেকে বালুয়াহাট সড়ক, সোনাতলা বন্দর-শাহবাজপুর ভায়া মহর আলীর বাড়ি সড়ক, সোনাতলা হাসপাতাল-মাগুরাদহ সড়ক, সোনাতলার চমরগাছা-নিত্যনন্দনপুর মসজিদ ভায়া কানুপুর সড়ক, সোনাতলা রেলগেট-চমরগাছা ভায়া ব্যাঙেরঘাট ব্রীজ সড়ক, খানপাড়া-মোকামতলা সড়ক, সোনাতলা রেলগেট-বালুয়াহাট সড়ক, সোনাতলা হাসপাতাল-সরকারবাড়ি সড়ক, ভেমটিঘাট-বিশুরপাড়া ভায়া নয়াপাড়া সড়ক, শাহবাজপুর জাহিদুলের বাড়ি হতে-শাহবাজপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সড়ক, সোনাতলা-গবরজান ব্রীজ সড়কগুলো এবারের বন্যায় লন্ডভন্ড হয়ে গেছে।
এমনকি সম্প্রতি সোনাতলা-রেলগেট থেকে হাসপাতাল সড়ক কাজ শেষ না হতে না হতেই বন্যার পানির স্রোতে বিভিন্ন স্থানে ভেঙ্গে ও দেবে গেছে।
এদিকে বগুড়ার সোনাতলা পৌরসভার কর্মকর্তা কর্মচারীদের লাগাতার অবস্থান ধর্মঘটের কারণে পৌরবাসীর স্বাভাবিক জীবনযাত্রা ব্যাহত হচ্ছে। এমনকি সকল উন্নয়ন কর্মকান্ডের ফাইল বন্দি হয়ে রয়েছে।
এ বিষয়ে সোনাতলা পৌরসভার বাসিন্দারা জানান, বন্যার পানির স্রোতের তোড়ে পৌরসভার জনগুরুত্বপূর্ণ সড়কগুলো খানাখন্দকে পরিনত হওয়ায় স্বাভাবিক যান চলাচল বন্ধ হয়েছে। সড়কগুলো দ্রুত মেরামতের জন্য স্থানীয় সংসদ সদস্য আব্দুল মান্নানের হস্তক্ষেপ কামনা করেন পৌরবাসী।
এ ব্যাপারে সোনাতলা পৌরসভার মেয়র আলহাজ্ব জাহাঙ্গীর আলম নান্নু জানান, ৮৮ সালের বন্যা পরবর্তী এত বড় বন্যা কোনদিন হয়নি। এমনকি পৌরএলাকায় বন্যার পানিও ওঠেনি। এবারের বন্যায় তার পৌরসভার প্রায় ১৫টি পাকা সড়ক ও ১০টি কাচা সড়ক লন্ডভন্ড হয়ে গেছে। সম্প্রতি শেষ হওয়ার রাস্তাগুলোও নষ্ট হয়েছে। এতে করে প্রায় ২০ কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

No comments

Leave a Reply

eighteen + three =

সর্বশেষ সংবাদ